• মহানগর

    দেশের ক্রীড়াঙ্গনে অভূতপূর্ব উন্নয়ন হয়েছে: নাছির

      প্রতিনিধি ১১ ডিসেম্বর ২০২২ , ১০:২৬:৩৪ প্রিন্ট সংস্করণ

    চট্টবাণী: বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড সহ-সভাপতি ও সাবেক মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, বর্তমান সরকারের আমলে দেশের ক্রীড়াঙ্গনে অভূতপূর্ব উন্নয়ন হয়েছে। ক্রীড়া জগতের নানা প্রতিকূলতাকে জয় করে একটি ক্লাব সামনের দিকে এগিয়ে চলে।

    এমন বাস্তবতায় মাদারবাড়ি উদয়ন সংঘ সুদীর্ঘকাল থেকে ক্রীড়া জগতে বীরদর্পে এগিয়ে চলেছে।



    তিনি আরও বলেন, তাদের দক্ষতা যোগ্যতার বলে সাম্প্রতিক সময়ে অনুষ্ঠিত প্রিমিয়ার ফুটবল লীগে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। এ গৌরবের স্বীকৃতি স্বরূপ ক্লাবটি তাদের কৃতি খেলোয়াড়দের সংবর্ধিত করছে। খেলোয়াড়দের এমন সম্মাননা প্রদান নিঃসন্দেহে প্রশংসার দাবিদার।

    শনিবার (১০ ডিসেম্বর) রাতে চট্টগ্রাম নগরের সদরঘাটের একটি কমিউনিটি সেন্টারে ক্লাবের খেলোয়াড়দের সংবর্ধনা ও সম্মাননা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

    সিজেকেএস-সিডিএফএ প্রিমিয়ার ফুটবল লীগে মাদারবাড়ি উদয়ন সংঘ সম্প্রতি চ্যাম্পিয়ন হয় ।



    এ উপলক্ষে খেলোয়াড়দের শনিবার (১০ ডিসেম্বর) সংবর্ধনা ও সম্মাননা দেওয়া হয়।

    ওই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড সহ সভাপতি ও সাবেক মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন।

    খেলোয়াড় সংবর্ধনা ও সম্মাননা প্রদান উদযাপন কমিটির আহ্বায়ক আরিফুর রহমান রুবেলের সভাপতিত্বে ও আবদুল হাই’র সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন সিজেকেএস যুগ্ম সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, মশিউর রহমান চৌধুরী, কাউন্সিলর আতাউল্লাহ চৌধুরী, কাউন্সিলর গোলাম মোহাম্মদ জোবায়ের, বাংলাদেশ হকি ফেডারেশন সাধারণ সম্পাদক মো. ইউসুফ, সিজেকেএস কাউন্সিলর মসিউল আলম স্বপন, সাবেক কাউন্সিলর আলী বকস, মাদারবাড়ি উদয়ন সংঘের সভাপতি মনির আহম্মদ ও ক্রীড়া সাংবাদিক দেবাশীষ বড়ুয়া দেবু, এজেডএম হায়দার।



    এছাড়া আরও বক্তব্য দেন জাকির হোসেন লুলু, বাংলাদেশ লবণ মিল মালিক সমিতির সভাপতি নুরুল কবির, দানু মিয়া, মোহাম্মদ নাছের, মাদারবাড়ি উদয়ন সংঘের সহ সভাপতি মোহাম্মদ সেলিম, হাজী মহসিন, ইকবাল খান, নির্বাহী সদস্য বখতেয়ার, জসিমুল হুদা, নজরুল ইসলাম, হাসান মুরাদ, সিডিএফএ চট্টগ্রাম ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইয়াছির আরাফাত, ইকবাল হোসেন, মাহবুব আলম, কামরুন আনিস, রাশেদ জোবায়ের, এমএ মুসা বাবলু, হায়দার আলী, নুরুল ইসলাম, তাজুল ও শাহিদ।